সুবহা কুমারী বলে প্রতারণা করেছে ইলিয়াস, সব দেনমোহরের টাকা না দেয়ার ফন্দি সুবহা

সুবহা কুমারী বলে প্রতারণা করেছে ইলিয়াস, সব দেনমোহরের টাকা না দেয়ার ফন্দি সুবহা

মার্চ ১৬, ২০২২ 0 By বিনোদন২৪.কম

মডেল-অভিনেত্রী হুমায়রা শাহ সুবহার বিরুদ্ধে নতুন করে প্রতারণার অভিযোগ এনেছেন তার স্বামী ইলিয়াস হোসাইন। পুরোনো এক মামলার নথি সামনে এনে তিনি বলেছেন, সুবহার আগে বিয়ে হয়েছে। কিন্তু তার সঙ্গে বিয়ের সময় বিষয়টি জানাননি সুবহা।

গত বছরের ১ ডিসেম্বর বিয়ে করেন সুবহা ও ইলিয়াস। এর আগেই দুইবার বিয়ে করেছিলেন তিনি। সুবহার সঙ্গে এটি ছিল তার তৃতীয় বিয়ে। তবে বিয়ের একমাস না যেতেই সুবাহ ও ইলিয়াস পরস্পরের বিরুদ্ধে পাল্টাপাল্টি মামলা করেন। ইলিয়াসের অভিযোগ, তাকে ফাঁসিয়ে বিয়ে করেছেন সুবহা।

১৬ মার্চ এক ভিডিও বার্তায় ইলিয়াস বলেন, এর আগেও সুবাহর একটি বিয়ে হয়েছিল। এরপরেও আমাকে বিয়ের সময় কাবিননামায় সুবহা নিজেকে কুমারী উল্লেখ করে। সে আমার সঙ্গে প্রতারণা করেছে। পুরোনোর মামলার নথির বরাত দিয়ে ইলিয়াস বলেন, ওই মামলায় সুবহা নিজেই উল্লেখ করেছেন সে বিবাহিত। এখন সুবহা যদি বলে সে ওই সময় বিবাহিত ছিল না, তাহলে সে পুলিশের সঙ্গে প্রতারণা করেছে। তার ওই মামলাটি ছিল ভুয়া। তার উদ্দেশ্য ছিল মানুষকে ব্ল্যাকমেইল করা। আর যদি বলে বিয়ে করছে, তাহলে আমার সঙ্গে প্রতারণা করেছে কুমারী উল্লেখ করে। সেটার জন্য একটা প্রতারণা মামলা হবে।

সুবহার দেনমোহরের বিষয়ে ইলিয়াসের ভাষ্য, তিনি দেনমোহর পরিশোধ করে দিয়েছেন।

এ বিষয়ে সুবহা বলেন, ‌‌‌‘আমার যদি আগে বিয়ে থাকে তাহলে অবশ্যই আগের বিয়ের কাবিননামা আছে? কাবিননামা বা রেজিস্ট্রির কাগজ ছাড়া তো বিয়ে হওয়ার কথা না। এইসব উল্টাপাল্টা মিথ্যা ছড়িয়ে সে আমার দেওয়া মামলাগুলো থেকে বাঁচতে চাচ্ছে যেন আমি মামলা তুলে নেই এবং দেনমোহরের টাকা না দেওয়ার ফন্দি করছে। তিন বিয়ে হওয়া পুরুষকে আমি কীভাবে ফাঁসিয়ে বিয়ে করব তাও এত কম টাকা কাবিনে দেনমোহরে? যদি ফাঁসিয়ে বিয়ে করতাম তাহলে দেনমোহর থাকতো ৭৭ লাখ টাকা।। ৭ লাখ ৭৭ হাজার টাকা থাকতো না।’