ধর্ষণের শিকার লেডি গাগা যা বললেন

ধর্ষণের শিকার লেডি গাগা যা বললেন

মে ২২, ২০২১ 0 By বিনোদন২৪.কম

১৯ বছর বয়সে ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন মার্কিন পপ তারকা লেডি গাগা। এই শিল্পীকে গানের রেকর্ডিং পুড়িয়ে দেয়ার হুমকির মুখে একজন সঙ্গীত প্রযোজক তাকে ধর্ষণ করে।

ওই ঘটনায় অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়েন লেডি গাগা। ২০০৫ সালের ওই ঘটনা এখনও ভুলতে পারেননি ৩৫ বছর বয়সী গাগা।
অপরাহ উইনফ্রে এবং প্রিন্স হ্যারির নতুন অ্যাপল টিভি প্লাস শো-এর প্রথম পর্বে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে চাঞ্চল্যকর এমন ঘটনার বর্ণনা দেন লেডি গাগা।

লেডি গাগা বলেন, ‘আমি সেসময় মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছিলাম। তা থেকে বেরিয়ে আসতে আমি রীতিমতো যুদ্ধ করেছি। এখনও সেই ঘটনা আমাকে পীড়া দেয়। আমি ভয়াবহ সেই পরিস্থিতি ভুলতে পারি না। মনে হয় দুঃস্বপ্ন দেখছি।’
নিজের জীবনের ভয়াবহ ঘটনা তুলে ধরতে গিয়ে গাগা বলেন, ‘আমার বয়স তখন সবেমাত্র ১৯ বছর। একজন শিল্পীর ক্যারিয়ার শুরুর সময়ে যেমন সংগ্রাম করতে হয়, আমিও সেটার মধ্যে ছিলাম। সেসময় আমি একটি সঙ্গীত প্রযোজনা টিমের সঙ্গে কাজ করছিলাম। আমার কিছু গান রেকর্ড করা হয়।’

তিনি আরও বলেন, ‘ওই সঙ্গীতের প্রযোজক আমাকে হঠাৎ পোশাক খুলতে জোর করেন। আমি সেখান থেকে কৌশলে বেরিয়ে আসি। পরে তারা আমাকে ফোনে জানায়, আমি যদি প্রযোজকের কুপ্রস্তাবে রাজি না হই, তারা আমার রেকর্ড করা সব গান পুড়িয়ে দেবে। বাধ্য হয়ে আমি সেখানে ফিরে গিয়েছিলাম।’

লেডি গাগা বলেন, ‘আমি প্রযোজককে অনেক অনুরোধ করলেও সে থামেনি। তারা স্টুডিওর কক্ষ তালাবদ্ধ করে আমার ওপর অত্যাচার চালায়। আমি অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ি। তারা আমাকে কয়েক মাস স্টুডিওতে রাখে। সেমময় আমি প্রচুর বমি করেছিলাম এবং মারাত্মক অসুস্থ হয়ে পড়ি। আমি মানসিক এবং শারীরিক সমস্যায় ভুগছিলাম। একা কোথাও থাকলে আমি আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়তাম।’