দুই মাস ধরে অসুস্থ, চিকিৎসার অস্ট্রেলিয়া গেলেন তাসকিন

0
15

আলোচিত অভিনেতা তাসকিন রহমানের শারীরিক অবস্থা আরো জটিল হয়েছে। সম্প্রতি চিকিৎসার জন্য বাংলাদেশ থেকে ছুটে গিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ায়।

গত অক্টোবরে তাসকিন রহমান জানান, শারীরিকভাবে সুস্থ তিনি। চিকিৎসকের পরামর্শ মতো তাকে ১ মাস বিশ্রাম নিতে হবে। সে অনুযায়ী কাজ-শুটিং বন্ধ রেখে বিশ্রামে ছিলেন এই তারকা।

কিন্তু বিশ্রামে থাকা অবস্থায় হঠাৎ করে তার প্রচণ্ড মাথা ব্যথা শুরু হয়, সঙ্গে সমস্যা দেখা দেয় চোখে। এরপর আবারো পরীক্ষা করে তাসকিন জানতে পারেন, তার অপটিক্যাল নার্ভাল সিস্টেমে জটিলতা তৈরি হয়েছে। এর চিকিৎসা বেশ স্পর্শকাতর। তাই উন্নত চিকিৎসার জন্য গত রবিবার অস্ট্রেলিয়ায় গিয়েছেন তিনি।

অস্ট্রেলিয়া থেকে তাসকিন রহমান বলেন, প্রায় দুই মাস ধরে অসুস্থ। শরীরের দুর্বলা কাটছিলই না। তাই চিকিৎসকের পরামর্শে বিশ্রামে ছিলাম। এরমধ্যেই হঠাৎ করে আমার প্রচণ্ড মাথা ব্যথা দেখা দেয়। আর যখনই মাথা ব্যথা শুরু হয় তখনই চোখ ঘোলা হয়ে যায়। দিনদিন এটা বাড়ছিল। পরে জানতে পারলাম অপটিক্যাল নার্ভাল সিস্টেমে জটিলতা দেখা দিয়েছে। এটা মস্তিষ্কের সঙ্গে সংযুক্ত। সময় মতো সঠিক চিকিৎসা না হলে, এটি আরো জটিল হয়ে যেকোনো সময় বড় ধরনের কিছু হয়ে যেতে পারে।

অস্ট্রেলিয়ায় পৌঁছানোর পর করোনার জন্য দেশটির সরকারের অধীনে হোটেলে ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন তাসকিন। কোয়ারেন্টাইন শেষ হলে তাকে হাসপাতালে ভর্তি হতে হবে কিনা সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে এরমধ্যেও তার চিকিৎসা শুরু হয়েছে বলেও জানান তিনি।

‘ঢাকা অ্যাটাক’ খ্যাত এই তারকা অক্টোবরে চিকিৎসার জন্য ভারতের হায়দ্রাবাদে গিয়েছিলেন। তখন চিকিৎসক তার পালস রেট ও হার্টবিটের মধ্যে তারতম্য খুঁজে পান। যেটা স্বাভাবিক করতে মাসখানেক বিশ্রাম থাকার পরামর্শ দেওয়া হয়েছিল তাকে।

২০১৭ সালে ‘ঢাকা অ্যাটাক’ সিনেমার মধ্য দিয়ে তাসকিন রহমানের বড় পর্দায় অভিষেক ঘটে। প্রথম সিনেমাতেই দুর্দান্ত অভিনয় করে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পান। এরপর তার অভিনীত ‘বয়ফ্রেন্ড’ ও ‘যদি একদিন’ সিনেমা মুক্তি পায় প্রেক্ষাগৃহে। তার মুক্তি প্রতীক্ষিত সিনেমার মধ্যে রয়েছে ‘মিশন এক্সট্রিম’, ‘শান’, ‘ক্যাসিনো’, ‘অপারেশন সুন্দরবন’, ‘ঢাকা ২০৪০’, ‘ওস্তাদ’ ও ‘গিরগিটি’।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here