কী চমক থাকছে জেমসের ৫৬ তম জন্মদিনে

0
14

ভক্তদের কাছে জেমস মানেই তারুণ্যের উন্মাদনা। তার গানের তালে মেতে ওঠে যুবক মন। তার কনসার্টগুলোতে জেগে ওঠে ভালোবাসার উদ্দীপনা। নগরবাউল ভক্তদের কাছে তিনি ‘গুরু’। আজকের দিনটি শেষ হলেই ৫৬ বছরে পা রাখবেন সবার প্রিয় শিল্পী জেমস।

আগামীকাল জেমসের জন্মদিন। প্রতি বছরেই এ দিনটি জেমসের ভক্তদের বিশেষ আয়োজন দেখা যায়। তবে জেমস নিজে বরাবরের মতো এবারের জন্মদিনেও কোনো আয়োজন করছেন না। কিন্তু করোনার এই সময়ে তার ভক্তরা কি বসে থাকবেন? নাকি অন্যান্যবারের মতো বিশেষ কোন চমক নিয়ে হাজির হবেন? সে প্রশ্নের উত্তর জানা যাবে শুক্রবারেই।

জেমসের জীবনকাহিনি যেন এক চলচ্চিত্রের গল্প। বোহেমিয়ান জীবন, খ্যাতি, প্রেম, বিচ্ছেদ, আপামর মানুষের আইকন হয়ে ওঠা। তাইতো তার কাছে জীবন এক রহস্যময়। তার কথায়, জীবনের সংজ্ঞা এখনও খুঁজে ফিরছি এই আমি।

জানা গেছে, করোনার এই সময়ে ঢাকার নিজস্ব ফ্ল্যাটেই সময় কাটাচ্ছেন জেমস। হোম স্টুডিওতে নিয়মিত জ্যামিং করছেন। অপেক্ষায় আছেন আবারও মঞ্চে ওঠার।

বেশ কয়েক বছর ধরে নতুন গান প্রকাশ থেকে দূরে রয়েছেন জেমস। নতুন গান প্রকাশের বিষয়ে জেমস বলেন, করোনাকাল শেষ হলে নতুন গান প্রকাশ হবে।

২০০৬ সালে বলিউডের গ্যাংস্টার ছবির ভিগি ভিগি গান দিয়ে হয়েছেন ভারতের কোটি মানুষের প্রিয় শিল্পী। হয়েছেন ভারতের একমাত্র মুসলিম রকস্টার। এরপরেও বলিউডের সিনেমার গানে কণ্ঠ দিয়েছেন। সবশেষ আরিফিন শুভ ও মাহি অভিনীত ওয়ার্নিং সিনেমায় টাইটেল সংয়ে কণ্ঠ দেন জেমস।

প্রসঙ্গত, ১৯৬৪ সালের ২ অক্টোবর পৃথিবীতে এসেছিলেন জেমস। জেমসের জন্ম নওগাঁয়, তবে তিনি বেড়ে উঠেছেন চট্টগ্রামে। সেখানে থাকা অবস্থায় জেমস ব্যান্ড সংগীতের প্রেমে পড়েন। তিনি রক ব্যান্ড ফিলিংস (বর্তমানে নগর বাউল হিসাবে পরিচিত) এর প্রধান গায়ক, গীতিকার ও গিটারিস্ট, যা তিনি ১৯৭৭ সালে প্রতিষ্ঠা করেন।

জেমস ১৯৯০ এর দশকে ফিলিংসের মুখ্যব্যক্তি হিসাবে মূলধারার খ্যাতিতে উঠে এসেছিলেন, যা বিগ থ্রি অফ রক এর মধ্যে অন্যতম, যারা এলআরবি এবং অর্কের পাশাপাশি বাংলাদেশে হার্ড রক সংগীত বিকাশ ও জনপ্রিয় করার জন্য প্রশংসিত। ফিলিংসকে বাংলাদেশের সাইকেডেলিক রক এর প্রবর্তক হিসাবে বিবেচনা করা হয়। এ ক্ষেত্রেই জেমসকে গুরু বলে সম্বোধন করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here