এবার ‘মিশন এক্সট্রিম’

0
41

‘কপ ক্রিয়েশন’-এর ব্যানারে নির্মিত হতে যাচ্ছে বাংলাদেশের দ্বিতীয় পুলিশ অ্যাকশন থ্রিলার সিনেমা ‘মিশন এক্সট্রিম’‘। ক্রাইম, থ্রিল, সাসপেন্স এবং অ্যাকশন নির্ভর একটি মৌলিক গল্পের উপর ভিত্তি করে সিনেমাটি নির্মিত হচ্ছে।

সিনেমার কাহিনী, চিত্রনাট্য এবং সংলাপ লিখেছেন সানী সানোয়ার। দর্শক চাহিদার উপর ভিত্তি করে সিনেমাটির গল্প বলার ধরণ, অ্যাকশন দৃশ্য চিত্রায়ণ এবং বিভিন্ন দৃশ্যে প্রযুক্তির ব্যবহার বিশ্বমানে উন্নিত করার পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে।

‘মিশন এক্সট্রিম’-এর কাহিনী, চিত্রনাট্য এবং সংলাপ প্রস্তুতি পর্ব প্রায় শেষ পর্যায়ে। এখন চলছে কলাকুশলী নির্বাচন পর্ব। ইতিমধ্যে সিনেমাটির কেন্দ্রীয় চরিত্রের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন আরিফিন শুভ। তাকে পুলিশের স্পেশাল ফোর্সের একজন চৌকশ, পেশাদার এবং সাহসী পুলিশ অফিসারের ভূমিকায় দেখা যাবে। অত্যন্ত আকর্ষনীয় এই চরিত্রে তাকে যথাযথভাবে উপস্থাপনের জন্য বহুমাত্রিক পরিকল্পনা গ্রহন করা হয়েছে। সেই সাথে সবগুলো গুরুত্বপূর্ণ চরিত্র সূচারুভাবে উপস্থাপনের জন্যও নেয়া হয়েছে বেশ কিছু উদ্যোগ।

এটি সিনেমাটি পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট তথা ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের ’সিটিটিসি’র কিছু শ্বাসরুদ্ধকর অভিযান থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে নির্মাণ করা হচ্ছে। পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে স্পেশাল পুলিশ ফোর্সের সদস্যদের পেশাদারীত্ব, ত্যাগ, সাহসিকতা এবং সাফল্যের উপর ভিত্তি করে অসংখ্য উপভোগ্যকর এবং জনপ্রিয় সিনেমা নির্মিত হলেও বাংলাদেশে তা নগণ্য।

তাই, দর্শক চাহিদার উপর ভিত্তি করে আমাদের দেশের স্পেশাল পুলিশ ফোর্স নিয়ে দ্বিতীয়বারের মতো এই সিনেমাটি নির্মিত হতে যাচ্ছে।

সিনেমাটির কাহিনীকার সানী সানোয়ার (পুলিশ সুপার, বাংলাদেশ পুলিশ) পুলিশের স্পেশাল পুলিশ ফোর্সের একজন অভিজ্ঞ সদস্য। তিনি তার পেশাগত (বাস্তব) জীবনের কিছু অভিজ্ঞতা থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে সিনেমার কাহিনী লিখেছেন।

উল্লেখ্য যে, ২০১৭ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত বাংলাদেশের প্রথম পুলিশ অ্যাকশন থ্রিলার সিনেমা ’ঢাকা অ্যাটাক’-এর কাহিনীকারও ছিলেন তি সানী সারোয়ার। সিনেমাটি ব্যাপকভাবে আলোচিত হয় এবং সবশ্রেণীর দর্শক কর্তৃক নন্দিত হয়। আর, ‘মিশন এক্সট্রিম’ হতে যাচ্ছে ‘ঢাকা অ্যাটাক’ টিমের দ্বিতীয় সিনেমা।

‘মিশন এক্সট্রিম’ পরিচালনা করবেন ফয়সাল আহমেদ। তিনি ’ঢাকা অ্যাটাক’ সিনেমায় প্রধান সহকারী পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। ২০১৯ সালের মার্চ থেকে সিনেমার শুটিং শুরু হবে এবং আগামী বছরের কোনও এক সময় সিনেমাটি মুক্তি দেয়া হবে।

ছবির নায়ক আরিফিন শুভ বলেন, আমরা প্রায় এক বছর ধরে নানা ধরণের আলোচনার পর ‘মিশন এক্সট্রিম’ নামটি পেয়েছি। গল্প চূড়ান্ত হয়েছে। বর্তমানে সিনেমাটির প্রি-প্রোডাকশনের কাজ চলছে। আশা করছি আগামী বছরের শুরুতে অনেক বড় আয়োজনে সিনেমাটির শুটিং শুরু হবে। এমন একটি আন্তর্জাতিক মানের সিনেমায় আমাকে যুক্ত করার জন্য সানী সানোয়ার ভাই ও কপ ক্রিয়েশনের প্রতি আমি কৃতজ্ঞ।

শিগগিরই সিনেমাটির অন্যান্য তথ্য এবং গুরুত্বপূর্ণ কলাকুলশলীদের নাম জানানো হবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here