উৎসবে নিষিদ্ধ হলো যৌথ প্রযোজনা ও আমদানির ছবি

দেশের বিভিন্ন উৎসবে-যেমন ঈদ,পয়লা বৈশাখসহ যে কোন উৎসবে এ দেশের প্রেক্ষাগৃহে যৌথ প্রযোজনা কিংবা আমদানি করা কোনো ছবি মুক্তি দেওয়া যাবে না। এ-সংক্রান্ত এক রিট আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি সালমা মাসুদ ও এ কে এম জহিরুল হক গত ১০ মে বৃহস্পতিবার বিকেলে এ আদেশ দেন। এছাড়া ”বাংলাদেশের উৎসবের দিনে কেনো যৌথ প্রযোজনা ও আমদানি করা ছবি দেশীয় প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি অবৈধ হবে না?” আদালত এ সংক্রান্ত একটি রুল জারি করে তথ্যসচিব, চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডের ভাইস চেয়ারম্যান, তথ্য মন্ত্রণালয়ের উপসচিবকে চার সপ্তাহের মধ্যে এই রুলের জবাব দিতে বলেছেন।

গত ৯ মে নিপা এন্টারপ্রাইজের পক্ষে প্রযোজক সেলিনা বেগম উক্ত আদালতে বিদেশি ছবি বাংলাদেশের বিশেষ দিবসগুলোতে প্রদর্শনের স্থগিত চেয়ে রিট আবেদন করেন। রিটকারীর পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন ব্যারিস্টার শফিক আহমেদ ও ব্যারিস্টার মাহবুব শফিক।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ব্যারিস্টার শফিক আহম্মেদ বলেন,”মহামান্য আদালত যৌথ প্রযোজনা ও আমদানি করা ছবিগুলো দেশীয় প্রেক্ষাগৃহে মুক্তির ওপর স্থগিতাদেশ দিয়েছেন। আশা করছি, এ স্থগিতাদেশ দেওয়ার কপিটি আগামী রোববার হাতে পাব।”

এ ব্যাপারে রিটকারী প্রযোজক সেলিনা বেগম বলেন,”দেশীয় চলচ্চিত্রের স্বার্থে ও বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিবারের সঙ্গে একমত পোষণ করে আমি এ মামলা করেছি।”

উল্লেখ্য,আসছে ঈদুল ফিতরে কলকাতার দুই বাংলা ছবি -শাকিব খান অভিনীত ”ভাইজান এলো রে” ও কলকাতার নায়ক জিৎ অভিনীত ”সুলতান” সাফটা চুক্তির মাধ্যমে বাংলাদেশে মুক্তি দেয়ার চেষ্টা চলছে বলে জানা গেছে। জয়দেব মুখার্জি পরিচালিত ”ভাইজান এলো রে” ছবিতে অভিনয় করেছেন বাংলাদেশের শাকিব খান ও ভারতের শ্রাবন্তী, পায়েল সরকার। আর রাজা চন্দ পরিচালিত ”সুলতান” ছবিটিতে অভিনয় করেছেন কলকাতার নায়ক জিৎ আর ঢাকার নায়িকা বিদ্যা সিনহা মিম।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here